ঢাকারবিবার, ২১শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ফোন হ্যাক হয়েছে, বুঝবেন কীভাবে?

অনলাইন ডেস্ক
মার্চ ১৬, ২০২৩ ৭:৪৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

বর্তমান সময়ে ফোন হ্যাকিং একটা গুরুতর সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। কেননা, প্রয়োজনীয় সব তথ্যই এখন আমরা সংরক্ষণ করে রাখছি আমাদের পারসোনাল মোবাইল ফোনে। মোবাইল হ্যাক হলে সব তথ্য তো হারাবেনই, সেই সঙ্গে সব তথ্য চলে যাবে অন্যের হাতে। তাই ফোন হ্যাকিং কী এবং কী কী লক্ষণ দেখে সহজেই বুঝবেন আপনার ফোনটি হ্যাক হয়েছে, তা নিয়ে বিস্তারিত থাকছে আজকের আয়োজনে।


বাংলালাইভের সর্বশেষ খবর পেতে Google News অনুসরণ করু


ফোন হ্যাকিং হলো এমন প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে আপনার ফোনের সব সংরক্ষিত তথ্যসহ ফোনের সব নিয়ন্ত্রণ চলে যাবে আরেকজনের কাছে। মোবাইল হ্যাক হলে বোঝার আগেই আপনার মোবাইল ফোনের ক্যামেরা সিস্টেম চালু হয়ে তার ভিডিও চলে যাবে অন্য আরেকজনের কাছে।

সাধারণত ফোনের ডেটা সিস্টেমের মাধ্যমে এই প্রক্রিয়াটি হয়ে থাকে। আপনি ফোনে কিছু না করলেও যদি হঠাৎ আপনার ফোনে মাত্রাতিরিক্ত হারে ডেটা ব্যবহৃত হয়, তাহলে বুঝবেন ফোন হ্যাক হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ফোনে ক্রমাগত পপআপ বিজ্ঞাপন আসা, অচেনা নম্বর থেকে কল আসা, অপরিচিত অ্যাপ আপনার অজান্তেই ফোনে ইনস্টল হওয়া শুরু করলে নিশ্চিত থাকেন ফোন হ্যাক হতে চলেছে।

আজকের মোবাইল বিশ্বে ফোন হ্যাকিং ক্রমাগত নিরাপত্তা সমস্যা হিসেবে বেড়ে যাচ্ছে। যদি আপনার মোবাইলে অটোমেটিক নম্বর ডায়াল হয়, অটোমেটিক অ্যাপ চালু হয়ে যায়, অল্প সময়ে মোবাইল গরম হয়ে গেলে, অপারেশন স্পিড কমে, খুব তাড়াতাড়ি মোবাইলের চার্জ শেষ হয়ে গেলে কিংবা আপনার ব্যবহার করা অ্যাপ চালাতে চালাতে হঠাৎ বন্ধ হয়ে গেলে বুঝবেন আপনার মোবাইলটির ওপর হ্যাকারদের নজর রয়েছে।

এসব লক্ষণ যদি আপনার মোবাইলে প্রকাশ পেতে শুরু করে তবে ধরে নিতে হবে আপনার মোবাইল হ্যাক হয়েছে। আইটি বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অসাধু বন্ধু, বহিরাগত বা অপরিচিত ব্যক্তির মাধ্যমেই ফোন হ্যাক হওয়ার ঘটনা ঘটে থাকে।

তাই আপনার ফোনকে কখনোই অযত্নে রাখবেন না। সবসময় মোবাইলটি আপনার সঙ্গে রাখার চেষ্টা করুন। ফোনের ডিফল্ট পাসকোড পরিবর্তন করুন। অচেনা ওয়েবসাইটে স্ক্রল করবেন না, যেকোনো অচেনা লিংকে ক্লিক করা থেকে বিরত থাকুন। আপনার ব্লুটুথ নিরাপত্তা পরিচালনা করুন। অরক্ষিত ব্লুটুথ নেটওয়ার্ক ব্যবহার করা এড়িয়ে চলুন। আপনার পিন এবং ক্রেডিট কার্ড ডেটা সুরক্ষিত করুন। পিন নম্বর এবং ক্রেডিট কার্ডগুলো সংরক্ষণ করতে একটি সুরক্ষিত অ্যাপ ব্যবহার করুন।

এছাড়া অনিরাপদ পাবলিক ওয়াইফাই এড়িয়ে চলুন। হ্যাকাররা প্রায়ই পাবলিক ওয়াইফাইয়ের মাধ্যমে ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের মতো গুরুত্বপূর্ণ অবস্থানগুলো লক্ষ্য করে। আপনার ফোনের স্বয়ংসম্পূর্ণ অপশনটি বন্ধ করুন। এটি করার মাধ্যমে আপনি হ্যাকারকে ব্যক্তিগত ডেটা অ্যাক্সেস করা থেকে আটকাতে পারেন।

সূত্র: আনন্দবাজার